প্রচ্ছদ > সিলেট প্রতিক্ষণ > জগন্নাথপুরে প্রলোভনে পড়ে স্কুল ছাত্রীর বাল্য বিয়ে

জগন্নাথপুরে প্রলোভনে পড়ে স্কুল ছাত্রীর বাল্য বিয়ে

সিলেট প্রতিক্ষণ সিলেট শীর্ষ সুনামগঞ্জ

ডেস্ক নিউজ : সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলার চিলাউড়া হলদিপুর ইউনিয়নে বাবা-মাকে লোভ দেখিয়ে এক স্কুল ছাত্রীর বাল্য বিয়ে দেওয়া হয়েছে। গত ২০ মার্চ শুক্রবার পবিত্র শবে বরাতের রাতে উপজেলার চিলাউড়া গ্রামে এই বিয়ে সম্পন্ন হয়। চিলাউড়া গ্রামের ছালিক মিয়ার মেয়ে চিলাউড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণির ছাত্রী খাদিজা বেগমের {১৬} সঙ্গে একই গ্রামের আব্দুল মানিকের ছেলে ইমন আহমদের {২৫} বিয়ের অনুষ্ঠান ছালিক মিয়ার বাড়িতে সম্পন্ন হয়। কাবিননামা ছাড়াই বিয়ে পড়ান চিলাউড়া মাদ্রাসার হিফজ বিভাগের শিক্ষক হাফিজ ছামির হুসাইন।

স্থানীয় গ্রামবাসী জানান, ছালিক মিয়ার মেয়ে এখনও ১০ম শ্রেণিতে পড়ে। সে আরও লেখাপড়া করতে চায়। কিন্তু বরপক্ষ মেয়ের বাবাকে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে বাল্যবিবাহে চাপ সৃষ্টি করে। এতে লোভ সামলাতে না পেরে ছালিক মিয়া নিজের নাবালক মেয়েকে বিয়ের পিড়িতে বসাতে বাধ্য করেন। পবিত্র শবে বরাতের রাতে গোপনে কোনো কাজী ছাড়া ও কাবিননামা ছাড়াই বরের বোনের জামাই ছামির হুসাইন বিয়ে পড়ান। এ নিয়ে চিলাউড়া গ্রামে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে জগন্নাথপুর উপজেলার চিলাউড়া হলদিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম বকুল বলেন,‘ বিষয়েটি আমি জানি না। তবে খোজখবর নিয়ে যদি এরকম কোনো বাল্যবিয়ে কাবিনছাড়া হয়ে থাকে, তাহলে আমি ইউএনও মহোদয়কে নিয়ে ব্যবস্থায় যাবো।’