চট্টগ্রাম থেকে পণ্য নিয়ে প্রথম ট্রেন গেল ঢাকায়

সময়ের ডাক ডেস্ক:করোনা সংক্রমণ রোধে লকডাউন ঘোষণার এক মাস ৭ দিন পর চট্টগ্রাম থেকে পণ্য নিয়ে প্রথম ট্রেন গেল ঢাকায়। শুক্রবার সকাল ১০ টায় চট্টগ্রাম কদমতলী রেল স্টেশন থেকে শুধুমাত্র কৃষকের উৎপাদিত পণ্য, শাক সবজি খাদ্য ও পচনশীল সামগ্রী নিয়ে প্রথম ট্রেনটি ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের বিভাগীয় ব্যবস্থাপক সাদেকুর রহমান এ তথ্য জানান। তিনি জানান, পণ্য পরিবহণের জন্যই বাংলাদেশ রেলওয়ের পার্শ্বেল স্পেশাল ট্রেনটি চালু করা হয়েছে। এটি রাত সাড়ে আটটায় ঢাকার কমলাপুর রেলস্টেশনে পৌছার কথা রয়েছে। তিনি জানান, পার্শ্বেল ট্রেনটি চট্টগ্রামের সিতাকুন্ড, ফেনী, লাকসাম, কুমিল্লাসহ বিভিন্ন স্টেশন থেকে মালামাল নিয়ে ঢাকা যাবে। কোনভাবেই এ ট্রেনে যেন যাত্রী পরিবহন করতে না পারে সে ব্যাপারে কঠোর নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এই পার্শ্বেল ট্রেন চলাচলের মাধ্যমে শাক সবজি থেকে শুরু করে খাদ্য সরবারহে ভূমিকা রাখবে বলে জানান রেলওয়ের এই কর্মকর্তা। তিনি আরও জানান, বাংলাদেশ রেলওয়ে ঢাকা-দেওয়ানগঞ্জ-ঢাকা এবং খুলনা-ঢাকা-খুলনা রুটে তিন জোড়া পার্সেল বিশেষ ট্রেন পরিচালনার করবে বলে রেলওয়ে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন। ঢাকা-দেওয়ানগঞ্জ-ঢাকা রুটের ট্রেনটি দেওয়ানগঞ্জ থেকে ছাড়বে প্রতিদিন সন্ধ্যা ৭টায় এবং ঢাকায় পৌঁছবে রাত সোয়া ৩টায়। খুলনা-ঢাকা-খুলনা রুটে খুলনা থেকে ছাড়বে বিকেল ৫ টায়, ঢাকায় পৌঁছবে রাত সাড়ে ৩ টায়। এটি সপ্তাহের শুক্র, রবি ও মঙ্গলবার চলাচল করবে। রেল কর্মকর্তারা জানান, প্রথমে কাঁচামাল ও শাকসবজি পরিবহনের জন্য লাগেজ ভ্যান চালু করা হবে। এরপর সীমিতভাবে আন্তনগর ট্রেন চালু করা হতে পারে। সূত্র জানায়, দেশে করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে গত ২৫ মার্চ থেকে যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল বন্ধ করে দেয় বাংলাদেশ রেলওয়ে। এরপর কবে থেকে রেল চালু হবে এ বিষয়ে এখনো সরকারের উচ্চ পর্যায় থেকে চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত আসেনি। তবে আগামী ৫ মে এর পর থেকে রেল চলাচল শুরু করার বিষয়ে প্রস্তুতি নিচ্ছে রেলপথ মন্ত্রণালয়।