প্রচ্ছদ > জাতীয় > শৈত্যপ্রবাহ থাকবে ৫-৬ দিন, হাড়কাঁপানো শীতে বিপর্যস্ত জনজীবন

শৈত্যপ্রবাহ থাকবে ৫-৬ দিন, হাড়কাঁপানো শীতে বিপর্যস্ত জনজীবন

জাতীয়

 

 

সময়ের ডাক ডেস্ক:ফের শুরু হয়েছে শৈত্যপ্রবাহ। আবহাওয়া অধিদফতর সূত্র বলছে, শৈত্যপ্রবাহ থাকবে আরও অন্তত ৫-৬দিন। কুয়াশার চাদরে ঢাকা রাজধানী। সূর্যের দেখা মিলছে না সকাল থেকেই। কনকনে শীতের সঙ্গে উত্তরের ঠান্ডা বাতাসে বিপর্যেস্ত জনজীবন।

আবহাওয়া অধিদফতেরর পূর্বাভাসে জানানো হয়েছিল, তিনটি শৈত্যপ্রবাহ হবে চলতি জানুয়ারি মাসে। সে হিসেবে আজ থেকে দ্বিতীয় শৈত্যপ্রবাহ শুরু হল।

এ বিষয়ে আবহাওয়াবিদ নাজমুল হক বলেন, আজ থেকে শুরু হওয়া এ শৈত্যপ্রবাহ পাঁচ–ছয় দিন পর্যন্ত চলতে পারে। এতে তাপমাত্রা কমে শীত অনুভূত বেশি হবে। তবে ডিসেম্বরের শৈত্যপ্রবাহের দিনে যেভাবে স্থবির হয়ে পড়েছিল সারা দেশ, তেমনটি হবে না। শৈত্যপ্রবাহটি একেক সময় একেক স্থানে বেশি বিস্তার লাভ করতে পারে।

আবহাওয়াবিদরা বলছেন, আকাশে মেঘ না থাকায় বিভিন্ন জেলায় সূর্যের আলো পাওয়ার সম্ভাবনা আছে। ফলে শীত কম অনুভূত হতে পারে সেসব অঞ্চলে। মূলত উত্তরাঞ্চল ও উত্তর–পশ্চিমাঞ্চলে শীতের অনুভূতি বেশি থাকতে পারে। শহরের চেয়ে গ্রাম এলাকায় শীত বেশি থাকবে।

গত তিন দিন ধরে কেবল পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় শৈত্যপ্রবাহ ছিল। তবে আজ সেই শৈত্যপ্রবাহ শুরু হয়েছে রংপুর ও রাজশাহী বিভাগ এবং যশোর ও চুয়াডাঙ্গায়। গত তিন দিনের তুলনায় আজ সেসব অঞ্চলে শীতের প্রকোপ আরও বেড়েছে।

আবহাওয়া অধিদফতরের পূর্বাভাস, সারা দেশের রাতের তাপমাত্রা ১-২ ডিগ্রি সেলসিয়াস কমে আসতে পারে।

উল্লেখ্য গতকাল বিকেল থেকেই উত্তরাঞ্চলে শীত বাড়তে দেখা গেছে। গতকাল অনেক জেলায় গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। সবচেয়ে বেশি ঈশ্বরদীতে ৪ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। গতকাল দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল তেঁতুলিয়ায়, ৯ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।