প্রচ্ছদ > রাজনীতি > সরকার রাজনৈতিক স্বার্থে রোহিঙ্গা সংকট জিইয়ে রাখছে: গয়েশ্বর

সরকার রাজনৈতিক স্বার্থে রোহিঙ্গা সংকট জিইয়ে রাখছে: গয়েশ্বর

রাজনীতি

সময়ের ডাক ডেস্ক:রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে রাজনৈতিক অঙ্গনে পাল্টাপাল্টি বক্তব্যের মধ্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, আওয়ামী লীগ সরকার রাজনৈতিক স্বার্থে রোহিঙ্গা সংকট জিইয়ে রাখতে চাইছে।

শনিবার ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে এক আলোচনা সভায় বক্তব্যে এই দাবি করেন তিনি।

নির্যাতনের মুখে মিয়ানমার থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গাকে ফেরত পাঠানোর দ্বিতীয় দফা উদ্যোগ গত সপ্তাহে ভেস্তে যাওয়ার পর তা নিয়ে চলছে আলোচনা।

প্রাণ বাঁচাতে ছুটে আসা এই রোহিঙ্গাদের জন্য মানবিক কারণে সীমান্ত খুলে দিয়ে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রশংসা কুড়ায় বাংলাদেশ সরকার। তবে অনির্দিষ্টকালের জন্য এত শরণার্থী রাখা সম্ভবপর নয় বলে প্রত্যাবাসনে জোর দেয়া হচ্ছে এখন।

গয়েশ্বর বলেন, বুঝতে হবে রোহিঙ্গারা যেতে চায় না কেন? রোহিঙ্গারা গেলে সেখানে আপনি (সরকার) কোনো রাজনৈতিক পুঁজি ব্যবহার করতে পারবেন না। এই ভয় থেকে তাদের স্থায়ীভাবে এখানে রেখে জাতীয় সংকট সৃষ্টি করতে চান।

রোহিঙ্গাদের সমাবেশের কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, রোহিঙ্গাদের ইন্ধন দিচ্ছে স্বয়ং সরকার। যদি ইন্ধন না দেয়, তাহলে তারা লাখ লাখ লোক সমবেত হয়ে সমাবেশ করে কীভাবে? তারা মিছিল করে কীভাবে?

গয়েশ্বর বলেন, রোহিঙ্গা সমস্যাটা জাতীয় সমস্য। এটা সমাধানের ক্ষেত্রে একটা কালেকটিভ লিডারশিপ দরকার।

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী প্রজন্ম ’৭১-এর চতুর্দশ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবিতে এই আলোচনা অনুষ্ঠানে জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) আহসান হাবিব লিংকন, বিএনপির আবদুস সালাম আজাদ, আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লাহ, কৃষক দলের খলিলুর রহমান, মৎস্যজীবী দলের রফিক উল্লাহ ভূঁইয়া, সংগঠনের সভাপতি ঢালী আমিনুল ইসলাম রিপন ও সাধারণ সম্পাদক জিয়াউল হক জিয়া বক্তব্য রাখেন।