প্রচ্ছদ > শীর্ষ সংবাদ > বিশ্বনাথে সড়কের পাশে ঝোঁপ থেকে শর্টগান উদ্ধার

বিশ্বনাথে সড়কের পাশে ঝোঁপ থেকে শর্টগান উদ্ধার

শীর্ষ সংবাদ সিলেট প্রতিক্ষণ

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি :: সিলেটের বিশ্বনাথে পুলিশ-ডাকাত দলের গোলাগুলির ৩ দিন পর গ্রেফতারকৃত ডাকাত আক্কুল আলী আকুলের স্বীকারোক্তিতে সড়কের পার্শ্বে থাকা ঝোপ থেকে আরেকটি শর্টগান উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

শনিবার (২৯ জুন) দুপুরে উপজেলার খাজাঞ্চী ইউনিয়নের দূর্লবপুর গ্রামের ফ্রান্স প্রবাসী আবদুস ছোবহানের বাড়ির পেছনে দূর্লভপুর-মঙ্গলগিরি সড়কের পাশের ঝোঁপ থেকে ওই শর্টগানটি উদ্ধার করা হয়।

ওসমানীনগরের সার্কেল সাইফুল ইসলামের নেতৃত্বে অস্ত্র উদ্ধার অভিযানে ছিলেন বিশ্বনাথ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ শামসুদ্দোহা পিপিএম, পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ দুলাল আকন্দ, এসআই দেবাশীষ শর্মা, মিজানুর রহমানসহ থানার একদল পুলিশ সদস্য।

উল্লেখ্য, গত ২৫ জুন মঙ্গলবার দিবাগত রাতে উপজেলার খাজাঞ্চী ইউনিয়নের একটি বাড়ি টার্গেট করে ডাকাতির জন্য ১০-১২ জনের একদল ডাকাত এলাকার ঢুকেছে সংবাদ পেয়ে এলাকায় অবস্থান নেয় পুলিশ। আর পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে পুলিশকে লক্ষ্য করে ডাকাত দল গুলি ছোড়তে শুরু করে। এতে পাঁচজন পুলিশ সদস্য আহত হন। এরপর পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়লে ডাকাত দল পালিয়ে যায়। তবে আক্কুল আলী আকুল (২৮) নামের এক ডাকাতকে আহত অবস্থায় গ্রেপ্তার করে পুলিশ। সে উপজেলার রামপাশা ইউনিয়নের নওধার গ্রামের ইদ্রিছ আলীর পুত্র ও চিহ্নিত ডাকাত ফটিক মিয়ার ভাই।

তাকে গ্রেপ্তারের সময় আগ্নেয়াস্ত্র (পাইপগান), দুটি গুলি, ডাকাতদের ব্যবহৃত চারটি শাবল, দুটি ব্যাগ, একটি ভেল্ট ব্যাগ উদ্ধার করা হয়।শর্টগান উদ্ধারের সত্যতা স্বীকার করে বিশ্বনাথ থানার অফিসার ইন-চার্জ (ওসি) মোহাম্মদ শামসুদ্দোহা পিপিএম, গোলাগুলির দিন ডাকাতরা এই আগ্নেয়াস্ত্রটি ফেলে যায়। গ্রেপ্তারকৃত ডাকাত আক্কুল আলী আকুলের স্বীকারোক্তিতে ওই আগ্নেয়াস্ত্রটি উদ্ধার করা হয়েছে।