হোটেলে নাস্তা দিতে বিলম্ব হওয়ায় কদমতলী ও পাঠানপাড়া এলাকাবাসীর সংঘর্ষ, পুলিশের ৪৭ রাউন্ড গুলি

 

 

নিজস্ব প্রতিবেদক: দক্ষিণ সুরামার কদতমতলী এলাকায় হোটেলে নাস্তা দিতে বিলম্ব হওয়ায় পাঠানপাড়া খাঁন বাড়ীর এক তরুণ হোটেলের কর্মচারীকে গালিগালাজের পাশাপাশি মারধর করেন। এসময় হোটেলে অবস্থান নেয়া কদমতলী এলাকার কয়েকজন লোক ওই তরুণকে মারধর করেন।

এরপর আহতবস্থায় ছেলেটি পাঠানপাড়া এলাকায় গিয়ে স্থানীয়দেরকে বিষয়টি জানালে এলাকায় জড়ো হওয়ার জন্য মাইকিং করা হয়। এরপর কদমতলী এলাকায় দুপক্ষের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়।পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্য পুলিশ ৪৭ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোঁড়ে।

বৃহস্পতিবার (৪ অক্টোকর) দুপুর আড়াইটা থেকে বিকেল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত দফায় দফায় সংঘর্ষ হয়। এসময় উভয় পক্ষেরে অন্তত ৬জন আহত হয়েছে। এসময় সিলেট জকিগঞ্জ সড়কের দুপাশে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

সংঘর্ষের খবর পেয়ে দক্ষিণ সুরমা থানার একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে তারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে পারেননি। পরে থানা থেকে অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ফাঁকা গুলি ছোঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে দক্ষিণ সুরমা থানার ওসি খায়রুল ফজল বলেন, সামান্য বিষয় নিয়ে কদমতলী ও পাঠানপাড়া এলাকার মধ্যে সংঘর্ষ হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে। এসময় পুলিশ ৪৭ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোঁড়ে। ঘটনাস্থল থেকে কাউকে আটক করা হয়নি। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।