ঠাকুরগাঁওয়ে সামান্য বৃষ্টিতে প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে হাঁটু পানি

হাসেম আলী, ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধি:সামান্য বৃষ্টি হলেই ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার গড়েয়া ইউনিয়নের মিলনপুর নুরনাহার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে হাঁটু পানি জমে। এতে শিক্ষক -শিক্ষার্থীদের বিদ্যালয়ে প্রবেশে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়। পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

 

স্থানীয় ইউপি সদস্য বেলাল হোসেন জানায়, ভারি বৃষ্টি হলেই মাঠে হাঁটু পানি জমে। বিদ্যালয় মাঠের মাঝ দিয়ে একটি রাস্তা রয়েছে, যা বন্ধ করে দেওয়ার জন্য উপজেলা শিক্ষা অফিস নির্দেশ দেন। কিন্তু বিকল্প রাস্তা করার জন্য বা মাঠটি ভরাট করার জন্য স্থানীয়দের কাছে জমি চাওয়া হলে স্থানীয়রা জমি দিতে অস্বীকার করে ফলে মাঠটি ভরাট সম্ভব হচ্ছে না।

তিনি আরো বলেন, পচা পানি পার হয়ে ভেজা ড্রেসে পুরো ক্লাস করতে হয়। ভেজা ড্রেসে দীর্ঘক্ষণ ক্লাস করাতে অনেকেই ঠান্ডাজনিত রোগে আক্রান্ত হচ্ছে।

 

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হুমায়ন কবির জানান, বিদ্যালয়ের চারপাশের জমি সমান্তরাল হওয়ার ফলে সামান্য বৃষ্টি হলেই জমির পানি মাঠে ঢুকে মুহূর্তের মধ্যে হাঁটু পানি জমে। পানি পাড় হয়ে বিদ্যালয়ে আসতে শিক্ষার্থীদের কষ্টের সীমা থাকে না।
বিশেষ করে ছাত্রীরা কাপড় ভিজিয়ে ক্লাসে ঢোকে এবং ভেজা কাপড়েই ক্লাস করতে হয়। ছুটির পর আবার কাপড় ভিজিয়ে বাড়ি ফিরতে হয়। এতে জ্বর ও সর্দি-কাশিসহ নানা ধরনের চর্মরোগে ভুগছেন শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

তিনি আরো বলেন, বিদ্যালয়ের মাঠটি ভরাট করার জন্য উপজেলা শিক্ষা অফিসে যোগাযোগ করা হলে তারা বলে এজন্য আমাদের কাছে কোন বাজেট নেই। আপনারা ইউনিয়ন পরিষদের রাস্তা মেরামত কর্মসূচির মাধ্যমে ভরাট করে নিয়েন।
আমরা মাঠটি ভরাটের জন্য ইউপি চেয়ারম্যানের সাথে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে বার বার কথা বললেও কাজ হয়নি।