বিশ্বনাথে ‘নারায়ণ প্রতিমা’ ভাংচুর করে পালিয়েছে দুর্বৃত্তরা

সময়ের ডাক:বৃহস্পতিবার (২৬ জুলাই) সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের ওই অজপাড়াগাঁয়ে এ ঘটনায় ভাঙচুরকৃত প্রতিমা দেখতে শতশত লোকজনের ভিড় দেখা গেছে।বুধবার (২৫ জুলাই) দিবাগত রাতে উপজেলার রায়পুর (টিমাইঘর) গ্রামের পান্ডব দেবনাথের বাড়িতে স্থাপিত ‘নারায়ণ প্রতিমা’ ভাংচুর করে দুর্বৃত্তরা।এ ঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করলে স্থানীয় ইউপি সদস্য ও পুলিশ প্রশাসনের উপস্থিতিতে এলাকাবাসীসহ শুক্রবার (২৭ জুলাই) বিকেলে স্থানীয় আটগ্রাম বাজারে বৈঠক ডাকা হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) অমিতাভ পরাগ তালুকদার ও থানার ওসি শামসুদ্দোহা পিপিএম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।এ প্রসঙ্গে থানার ওসি শামসুদ্দোহা পিপিএম বলেন, সরেজমিন তিনি ঘটনাস্থলে গিয়েছেন। পান্ডব দেবনাথের ভাই মোহন দেবনাথ, পান্ডব দেবনাথের ছেলে সুমন দেবনাথের সঙ্গে কথা হয়েছে এবং তারা মামলা দিতেও অপারগতা প্রকাশ করেছেন। তবে আটগ্রাম বাজারে বৈঠক শেষে সিদ্ধান্ত মতে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও তিনি জানিয়েছেন।নিজ চোখে দেখেছেন বলে নিশ্চিত করে নির্মল দেবনাথ বলেন, তিনি মুখোঁশ পড়া একজনকে দেখেছেন। এ সময় তিনিসহ বাড়ির লোকজন ধাওয়া করলে বাড়ির রাস্তায় প্রতিমা ভাংচুর করে পালিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা।বৈঠকের বিষয়টি নিশ্চিত করে স্থানীয় ইউপি সদস্য শফিক উদ্দিন ও পান্ডব দেবনাথের ছেলে সুমন দেবনাথ বলেন, গত ৩-৪দিন আগে পাশের পাড়ার (রায়পুর) অনিল বৈদ্যের বাড়ির দেবতা ভাংচুর করা হয়, দেড়মাস আগে বাবু দেবনাথের বাড়ির প্রতিমা ভাংচুর করা হয়। কারা এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত তাদেরকে চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার লক্ষেই এ সভা ডাকা হয়েছে বলেও তারা জানান।