প্রচ্ছদ > ভোটের কথা > ‘নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়ে লাঠিয়ালকে প্রত্যাখ্যান করবেন’

‘নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়ে লাঠিয়ালকে প্রত্যাখ্যান করবেন’

ভোটের কথা শীর্ষ সংবাদ সিলেট প্রতিক্ষণ

সময়ের ডাক: ‘সিলেট সিটির মালিক এ নগরের জনগণ। তাদেরকে শাসক হয়ে লাঠি দিয়ে নয়, ভালবাসা আর সেবার মাধ্যমে খুশি রাখতে হয়। অতীতে একজন মেয়র এ নগরের জনগণের বিরুদ্ধে লাঠির প্রয়োগ করেছেন। ৩০ জুলাই জনগণ ব্যালটের মাধ্যমে এর জবাব দেবে। তারা নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়ে সেই লাঠিয়ালকে প্রত্যাখ্যান করবে। আর এর মাধ্যমে প্রমাণ হবে শাসকের লাঠির শক্তির চেয়ে জনগণের শক্তি অনেক বেশি।’রবিবার রাতে সিলেট নগরীর সোবহানীঘাটে আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী, সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরানের নৌকা প্রতীকের সমর্থনে আয়োজিত জনসভায় বক্তারা এ কথা বলেন।

বক্তারা বলেন, আমাদের প্রিয় দেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে রয়েছে। বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সিলেটের কৃতি সন্তান অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত সিলেটের উন্নয়নে বিপুল পরিমাণ অর্থ বরাদ্দ দিয়েছেন। কিন্তু বিগত পাঁচ বছর সিলেট নগরীর জন্য বরাদ্দ করা অর্থের সদ্ব্যবহার করা হয়নি। লোক দেখানো কিছু কাজ করে বড় অংকের অর্থ লুটপাট করা হয়েছে।

১৫নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মকসুদ বক্সের সভাপতিত্বে ও আব্দুল জলিল লেবুর পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন- বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ, আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী, সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, জেলার আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বিজিত চৌধুরী, অ্যাডভোকেট মফুর আলী, গোলাপগঞ্জের সাবেক পৌর মেয়র জাকারিয়া আহমেদ পাপলু, অ্যাডভোকেট কিশোর কুমার কর, শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক নজমুল আলম রুমেন, সুয়েল আহমদ সায়েল, যুবলীগের মহানগর যুগ্ম আহবায়ক মুশফিক জায়গীরদার প্রমুখ।

নির্বাচনে নৌকা প্রতীক বিজয়ী করার জন্য নগরবাসীর প্রতি আহবান জানিয়ে বদর উদ্দিন আহমদ কামরান বলেন, মেয়র থাকাকালে নগরীর উন্নয়নে মাস্টারপ্ল্যান গ্রহণ করেছিলাম। নির্বাচিত হলে সেই মাস্টারপ্ল্যান অনুযায়ী পুরো নগরীকে এবার সাজাবো।

লালবাজারে কামরানের সমর্থনে নির্বাচনি সভা

সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরানের সমর্থনে নগরীর লালবাজারে রবিবার রাতে এক নির্বাচনী সভা অনুষ্ঠিত হয়। ব্যবসায়ী এনায়েত হোসেন ইনাত মিয়ার সভাপতিত্বে ও সিরাজুল ইসলাম সিরাজের পরিচালনায় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মেয়র প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরান।

হাফিজ আসাদ উদ্দিনের কোরআন তেলাওয়াতে সুচিত সভায় বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন- জেলা ব্যবসায়ী ঐক্য কল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুল আহাদ, সিরাজ মিয়া, সহসভাপতি আতিকুর রহমান আতিক, যুগ্ম সম্পাদক শাহ আহমদুর রব, বন্দরবাজার ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি আব্দুল কুদ্দুস, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মাসুক আহমদ, ব্যবসায়ী নেতা মো. মানিক মিয়া, আব্দুল হেকিম মাস্টার, সুহেল আহমদ সাহেল, ইমরান খান রায়হান, ইমরান আহমদ, নিজাম উদ্দিন, আব্দুস ছাত্তার, ফারুক আহমদ, শামীম আহমদ, দারা মিয়া, ইমাম উদ্দিন কামাল, জ্যোতিষ চন্দ্র, আব্দুর রশিদ, মাহতাব উদ্দিন, নুর উদ্দিন, আনোয়ার হোসেন প্রমুখ।

সভায় মেয়র প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরান সকলের দোয়া ও নৌকা প্রতীকে সমর্থন চেয়ে বলেন, আমি জীবনের দীর্ঘ সময় নগরবাসীর সেবায় নিয়োজিত ছিলাম। ব্যবসা-বণিজ্যের প্রসারে আমি সর্বদাই আপনাদের সাথে ছিলাম। ভবিষ্যতেও থাকবো। ২০০৮ সালে কারাগারে থাকাবস্থায় আপনারা মূল্যবান ভোট দিয়ে আমাকে মেয়র করেছিলেন। এবারও উন্নয়নের প্রতীক নৌকায় ভোট দিয়ে আপনাদের সেবা করার সুযোগ দেবেন।