ওসমানীতে কিশোরী ধর্ষণ: তদন্ত কমিটি গঠন

সময়ের ডাক: সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (সিওমেক) নবম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ইন্টার্ন চিকিৎসক ধর্ষণের ঘটনায় তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। মঙ্গলবার পাঁচ সদস্য বিশিষ্ট এই তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।

ওসমানী হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. দেবপদ রায় জানান, তদন্ত কমিটির প্রধান করা হয়েছে অধ্যাপক ডা. এন কে সিনহাকে। কমিটি সাত কর্মদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দেবে।

প্রসঙ্গত, গত রবিবার দিবাগত রাতে অসুস্থ নানির সাথে হাসপাতালের তৃতীয় তলার ৮নং ওয়ার্ডে ছিল ওই কিশোরী। গভীর রাতে ফাইল দেখার কথা বলে ওই কিশোরীকে একই তলায় নিজের কক্ষে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করেন ইন্টার্ন চিকিৎসক মাকামে মাহমুদ মাহী। গতকাল সোমবার সকালে কিশোরীর তার স্বজনদের বিষয়টি জানায়। পরে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ মাহীকে পুলিশের হাতে তুলে দেয়। কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে মাহীর বিরুদ্ধে কোতোয়ালী থানায় মামলা দায়ের করেন।

সোমবার আদালতের মাধ্যমে মাহীকে কারাগারে পাঠানো হয়। মাহী ময়মনসিংহের মুক্তাগাছার মোখলেছুর রহমানের ছেলে।