ফেইসবুকে দুই ব্যবসায়ীকে নিয়ে কু-রুচিপূর্ণ বক্তব্য পোষ্ট করায় আউশকান্দিতে প্রতিবাদ সভা

নবীগঞ্জ প্রতিনিধি ॥ যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে আউশকান্দি বাজার ব্যবসীয়কে নিয়ে মিথ্যা, বানোয়াট ও কু- রুচিপূর্ণ পোষ্ট করায় কারণে আউশকান্দি উত্তপ্ত। এ ঘটনায় আউশকান্দি যুব সমাজের উদ্যেগে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সোমবার সন্ধায় নবীগঞ্জ উপজেলার আউশকান্দি হীরাগঞ্জ বাজারে মোঃ মসুদ মিয়ার সভাপতিত্বে শামীম আহমদ ও তুহিন আহমদ এর যৌথ পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন, মোঃ সবুর মিয়া, সুহেল মিয়া, তারেক মনোয়ার, সুহাগ আহমদ, মাহমুদ মিয়া, মেহারাব হোসেন মাসুম, এমরান মিয়া, কামিল হোসেন, হৃদয় আহমদ, আমীন, দিপু সূত্রধর, রাসেল আহমদ, রুহেল আহমদ, রুমন আহমদ, আব্দুল কাইয়ুম, বুলবুল আহমদ সহ আারো অনেকেই।
সভায় বক্তারা বলেন, মৌলভীবাজার জেলার কেশবচর গ্রামের নান্দার মিয়ার কুলাঙ্গার (হাতুড়ে ডাক্তার) পুত্র বহু কু-কর্মের হুতা জুয়েল আহমদ ফয়েজ গত ২৬ এপ্রিল তার ফেইসবুক আইডি (সফলঁবিষ ধযসবফ ভড়ুধু) থেকে রাত ৮টা ৪৯মিনিটের সময় আউশকান্দি হীরাগঞ্জ বাজারের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও তরুন ব্যক্তিত্ব রুহেল আহমদ ও রোমন আহমদকে নিয়ে মানহানিকর কয়েকটি পোষ্ট করে যে, মাদক ও ডাকাত দলের সরদার রুহেল আহমদ ও রুমন আহমদ। তাদের বাহিনী নানা ভাবে হয়রানী করে আসছে…, সহ আরো অনেক কিছু। এই পোষ্টটি রুহেল আহমদ এর আত্মীয় স্বজন ও বন্ধ/বান্ধব এর নজরে পড়ে। এতে তারা সাথে সাথে ফেইসবুকে প্রতিবাদের ঝড় তুলেন। এক পর্যায়ে রুহেল বাজার ব্যবসায়ী ও এলাকার বিশিষ্ট লোকজনকে বিষয়টি অবগত করেন। কিন্তু জুয়েল ও তার পরিবারের লোকজনের কাছ থেকে কোন সুরাহা না পাওয়ায় আউশকান্দি এলাকার যুব সমাজ সহ বিভিন্ন শ্রেনী পেশার লোকজন চাপা ক্ষোভ নিয়ে প্রতিবাদ সভা করে।
এতে প্রতিবাদ সভায় বক্তারা আরো বলেন, যদি এই কুলাঙ্গার জুয়েলের সঠিক বিচার না হয় তাহলে আমরা আউশকান্দির যুব সমাজ এর দাঁত ভাঙ্গা জবাব দিতে যেকোন সময় প্রস্তুত রয়েছি।
খোজ নিয়ে জুয়েল সর্ম্পকে তার আরো অনেক কু-কৃতি জানাযায়, কিছুদিন পূর্বে তার চাচীকে ধর্ষনের চেষ্টায় ব্যর্থ হয়। তার চাচীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে দেশের বিভিন্ন পত্র- পত্রিকায় ফলাও করে সংবাদ প্রকাশ হওয়াতে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে রফাদফা করে। এর পূর্বে আরেক কলেজ পড়–য়া ছাত্রীর সাথে সরলতার সুযোগ নিয়ে তার সাথে মোবাইল ফোনে সেলফি নিয়ে যোগাযোগ মাধ্যমে ছেড়ে দেয়। এবং ঐ ছাত্রীর পরিবারের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা আত্মসাত করার পায়তায় লিপ্ত থাকে। কিন্তু এতেও কোন লাভ হয় নাই।